পোস্ত - TBNEWS

Breaking

TBNEWS

explore the world news

Post Top Ad

READ ALSO

                                                             

Thursday, 26 October 2017

পোস্ত

পোস্ত{www.techxpertbangla.com}
photo credit-INT


পোস্ত (Papaver Somnifera) খাখসদানা,খসবীজ,খসতিল,খাখস তিল এগুলো পোস্ত দানার নামাস্তর । Poppy Seed-এর নাম পোস্ত দানা এবং এই গাছের শিকড় ওষুধ হিসেবে কার্যকর। পোস্তদােনা মূলত কাফনাশক ভেষজ গুণসম্পন্ন। এর ব্যবহারিক মাত্রা — আধাতোলা একতোলা – ছয় থেকে বার গ্রাম পরিমাণ, প্রতিমাত্রা। এটি ওষুধ ও পথ্য দু’ভাবেই ব্যবহার্য।
বলক্ষয়(বলহীনতা),অনিদ্রা,আমাশা, ব্যথা (পেশিগত ও অন্যান্য ব্যথা), প্রদাহ, চর্মরোগ (চামড়ার শুষ্কতাজনিত চুলকানি), কমন (কলেরার বমন নিয়ন্ত্রণ) প্রভৃতি রোগ নিরাময়ের - কাজে পোস্তদানা ব্যবহার করা হয় নিম্নলিখিত পদ্ধতিতে
বলক্ষয় (বলহীনতা), বলক্ষয়, বলহীনতা, দৈহিক দীের্বলে পোস্তদানাচুর্ণ হালকা গরম দুধের সঙ্গে দুপুর ও রাতের আহারের পর সেবন করলে উপকার পাওয়া যায়। পোস্তদােনা ও কচি ঝিঙার তরকারি এ কাজে এক অনন্য পথ্য ভেষজ ।
অনিদ্রা: পোক্তদানাচুর্ণ / কল্ক (বঁটা) সমপরিমাণ চিনি মিশিয়ে হালকা গরম দুধের সঙ্গে আহারের (বিশেষতঃ রাতের আহার) পর সেবন করলে অনিদ্রা রোগ নিরাময়ে খুব ভালো কাজ করে।
আমাশী: পোস্তদানাচুর্ণ মধু মিশিয়ে সকাল-বিকাল, দিনের দু’বার খালিপেটে পরপর তিনদিন সেবন করলে আমাশার উপসর্গ দূর হয়। অবস্থাভেদে অনুরূপভাবে যোগটি এক সপ্তাহ বাদে আরও দু-একবার প্রয়োগ করা বিধেয়। ব্যথা: ব্যথানাশক ভেষজ হিসাবে খাঘস (পোস্তর টেড়ি / পোস্ত ফলের খোসা) কার্যকর ভূমিকা পালন করে। খাঘাস জলে সিদ্ধ করে স্বেদ দিতে হয়। পোস্তর টেড়ি সিদ্ধ জল সেবন ও পোস্তদানা বাটা প্রলেপ প্রয়োগে শুষ্ক | (অণ্ডকোষ), শূলাদি ব্যথা-বেদনার উপশম হয়। পেশিগত ও বাতজ বেদনাতেও এই প্রয়োগ-পদ্ধতি কার্যকর। প্রদাহ: পোস্তদানা বাটা প্রলেপন ও সেবন উভয় পদ্ধতি প্রয়োগে প্রদাহ নিবারন হয় । এটি দিনে তিন-চারবার প্রয়োগ করা দরকার। চর্মরোগ: চর্মরোগ, বিশেষত শুষ্কতাজনিত চুলকানিতে পোস্তদানা ভালো কাজ করে। পোস্তদানা বাটা পাতিলেবুর রস মিশিয়ে চুলকানির জায়গায় ঘর্ষণ করে প্রলেপন ও সেকন করতে হয়। বমন: বমন, বিশেষতঃ কলেরাজনিত বমন নিবারণে পোস্তদানা ওষুধ ও পথ দু’ভাবেই ব্যবহার্য। সাবধানত: গর্ভবতীর ক্ষেত্রে পোস্তদানার ব্যবহার নিষিদ্ধ। অন্যান্যদের ক্ষেত্রে মাত্রাতিরিক্ত পোস্ত ব্যবহার ক্ষতিকারক।এবং এটি অতিশয় গুরুপাক ।



--------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------

If You have any Questions or Query You caan freely ask by put Your valuable comments in the COMMENT BOX BELOW

আপনার যদি কোনও প্রশ্ন থাকে তবে আপনি নিচে COMMENT BOX এ আপনার মূল্যবান মন্তব্যগুলি করতে পারেন ।


--------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------

---------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------------- If You have any Questions or Query You can freely ask by put Your valuable comments in the COMMENT BOX BELOW আপনার যদি কোনও প্রশ্ন থাকে তবে আপনি নিচে COMMENT BOX এ আপনার মূল্যবান মন্তব্যগুলি করতে পারেন । #Don’t forget to share this post with your friends on social media

No comments:

Post a Comment

thanks for the comment

READ ALSO